রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ০৩:৩০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
দালাল-বেঈমানের জন্মদাতা কুখ্যাত ইব্রাহিমকে পাহাড়ি জনগণ কখনই ক্ষমা করবে না! টেকনাফে আদালতের আদেশ অমান্য করে জমি দখলের চেষ্টা খাগড়াছড়িতে অটোরিকশা চালকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার থানচি বাজার সড়কের বেহাল দশা, জনদুর্ভোগ চরমে ফিলিস্তিন সংকট:বেসামরিক নাগরিকদের গাজা ত্যাগের জন্য সময় নির্ধারণ করাই ইসরাইলের উদ্দেশ্য কুতুবদিয়ায় গলায় ফাঁস দিয়ে স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা ইসরায়েল থেকে রাষ্ট্রদূত প্রত্যাহার করলো তুরস্ক মাস্ক পরে অনুশীলনে বাংলাদেশ, দিল্লিতে ম্যাচ নিয়েও শঙ্কা গর্জনিয়ায় পানিতে ডুবে হেফজখানার ছাত্রের মৃত্যু পাকিস্তানের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ডের রানের পাহাড়

২ হাজার নেতাকর্মীসহ বঙ্গবন্ধুর কবর জিয়ারত করলেন এমপি কমল

ডেস্ক রিপোর্ট
  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ২০ পঠিত

প্রায় সাতশ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে দুই হাজার নেতাকর্মী নিয়ে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কবর জিয়ারত করলেন কক্সবাজার-৩ আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদাত বার্ষিকী ও আগস্টে শহীদদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় প্রতি বছর রামু স্টেডিয়ামে যে বৃহত্তর মেজবানের আয়োজন করা হতো সেই মেজবানও হয়েছে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিধন্য ঐতিহাসিক টুঙ্গিপাড়ায়।

এর আগে বুধবার (৭ সেপ্টেম্বর) রাত নয়টার দিকে ৫০টি এসি বাস নিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দুই হাজার নেতাকর্মীসহ রামু থেকে টুঙ্গিপাড়ার উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেন এমপি কমল। বৃহস্পতিবার সকালে টুঙ্গিপাড়ায় পৌঁছে দুপুর ১২টার দিকে নেতাকর্মীদের নিয়ে বঙ্গবন্ধুর সমাধিস্থলে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান তিনি। এরপর কবর জিয়ারত শেষে ইছালে ছওয়াব মাহফিল ও মেজবানে অংশ নেন।

সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি জানান, প্রতি বছর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস এবং আগস্টে শহীদদের স্মরণে রামু স্টেডিয়ামে অর্ধশতাধিক গরু জবাই করে বৃহত্তর মেজবানের আয়োজন করা হতো। যেখানে অংশ নিতেন তৃণমূলের হাজারো নেতাকর্মী। এ বছর সে আয়োজন আমরা করেছি টুঙ্গিপাড়ার বঙ্গবন্ধুর সমাধিস্থলে।

তিনি বলেন, সকালে ৫০টি বাসে করে নেতাকর্মীরা টুঙ্গিপাড়ায় নামলে এক মিলন মেলায় পরিণত হয়। এ সফরে, তৃণমূলের নেতাকর্মীদের অনেকেই আছেন যারা এই প্রথম টুঙ্গিপাড়ায় এসেছেন। বঙ্গবন্ধুর কবর জিয়ারত করতে পেরে তারা মহা খুশি। আমি ৯৬ সালেও এখানে এসেছি। জাতির পিতার মৃত্যুর পর এখানে তাঁর দাফন কাফনেও বাঁধা দেওয়া হয়েছিল। জিয়াউর রহমানের নির্দেশে বঙ্গবন্ধুর জানাজায় যেন মানুষ আসতে না পারে সেই ব্যবস্থা করা হয়েছিল। কিন্তু কালক্রমে এই টুঙ্গিপাড়া এখন জাতির ঠিকানা হয়ে গেছে।

এদিকে টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর কবর জিয়ারতের সুযোগ পেয়ে নিজেকে সৌভাগ্যবান মনে করছেন তৃণমূলের অনেক প্রবীণ নেতারা। সেই আশা পূরণে এ রকম মহৎ উদ্যোগের জন্য এমপি কমলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন তারা।

“টুঙ্গিপাড়ার বঙ্গবন্ধুর কবর জিয়ারত অনেক নেতাকর্মীর জন্য সৌভাগ্যের বিষয়। এমপি কমলের এই মহৎ উদ্যোগের কারণে হাজারো নেতাকর্মীর স্বপ্ন পূরণ হয়েছে” বলে জানান রামু প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি খালেদ শহীদ।

তিনি বলেন, এই সফর শুধু বঙ্গবন্ধুর কবর জিয়ারত নয়, দলের নবীন প্রবীণ হাজারো নেতাকর্মী বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে নতুন কিছু জানতে পেরেছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Let's check your brain − 6 = 4

একই ধরনের আরও সংবাদ
© All rights reserved 2022 CHT 360 degree